অভিজ্ঞতায় ভরপুর স্কোয়াড নিয়ে বিশ্বকাপে বাংলাদেশ

0
109

শাকিল কালাম:

ইতিহাসের সেরা স্কোয়াড সাজিয়ে ক্রিকেট বিশ্বকাপে খেলতে ইংল্যান্ড গেছে বাংলাদেশ। যাদের মধ্যে আট জনেরই আছে এর আগে কমপক্ষে একটি বিশ্বকাপ খেলার অভিজ্ঞতা। টাইগার স্কোয়াডে থাকা বিশ্বকাপ অভিজ্ঞদের নিয়ে এ আয়োজন।

ক্রিকেট বিশ্বকাপ ঘনিয়ে আসছে সেই সাথে বাড়ছে আলোচনা-সমালোচনা। কার পারফর্ম্যান্স কেমন হবে, তা নিয়ে চলছে চুলচেরা বিশ্লেষণ।

২০১৯ বিশ্বকাপে বাংলাদেশের স্কোয়াডের মধ্যে আট জনেরই আছে এর আগে কমপক্ষে একটি বিশ্বকাপ খেলার অভিজ্ঞতা।

দেশের হয়ে সর্বোচ্চ সংখ্যক চার বিশ্বকাপে অংশ নিয়েছেন মাশরাফি মুর্ত্তুজা, সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল আর মুশফিকুর রহিম।

দু’টি করে বিশ্বকাপ খেলেছেন মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ আর রুবেল হোসেন। আর একটি বিশ্বকাপে অংশ নেওয়ার সুযোগ পেয়েছেন সৌম্য সরকার ও সাব্বির রহমান।

২০০৩ সালে প্রথম বিশ্বকাপে অংশ নেওয়ার সুযোগ পান বাংলাদেশের ওয়ানডে দলের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা।

ঘরের মাঠে ২০১১ বিশ্বকাপে ইনজুরির কারণে মাঠের বাইরে বসেই দেখতে হয় বিশ্বকাপ। তা না হলে পাঁচ বিশ্বকাপ খেলার বিরল অভিজ্ঞতা থাকত তার ঝুঁলিতে।

সাকিব,মুশফিক আর তামিমের বিশ্বকাপে অভিষেক হয় ২০০৭ ওয়েস্ট ইন্ডিজ বিশ্বকাপ দিয়ে। আর সেই থেকেই দলের ভরসার প্রতীক হয়ে ওঠে এই ত্রয়ী।

সাকিব ২০১১ এর বিশ্বকাপে নেতৃত্বও দিয়েছিলেন বাংলাদেশকে। আর অভিষেকের পর থেকে তামিম ইকবালকে ছাড়া বাংলাদেশের উদ্বোধনী জুটি তো কল্পনাতীত।

ভরসার প্রতীক মিস্টার ডিপেন্ডেবল খ্যাত মুশফিকুর রহিম উইকেটের পেছনের অতন্দ্র প্রহরী।

২০১১তে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ঐতিহাসিক জয়ের নায়ক ছিলেন প্রথম বিশ্বকাপ খেলা মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। সেবার দলে ছিলেন রুবেল হোসেনও।  আর গেল বিশ্বকাপে টাইগারদের হয়ে বিশ্বকাপে খেলেছেন সৌম্য সরকার ও সাব্বির রহমান।