ইউটিউব দপ্তরে হামলাকারী আগে থেকেই ক্ষিপ্ত ছিলেন

0
47

 

ক্যালিফোর্নিয়ার সান ব্রুনোতে ইউটিউব সদর দপ্তরে গুলি চালানোর আগেই হামলাকারী নারী তার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট এক ওয়েবসাইটে এ ইউটিউবের কর্মকাণ্ড নিয়ে ক্ষোভ জানিয়েছিলেন।

মঙ্গলবার ইউটিউবের সদর দপ্তরে গুলি চালিয়ে তিনজনকে আহত করার পর ওই নারী নিজেই আত্মঘাতী হন বলে কর্তৃপক্ষ ও স্থানীয় গণমাধ্যমগুলোর বরাত দিয়ে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

ফেব্রুয়ারিতে ফ্লোরিডার একটি স্কুলে বন্দুকধারীর হামলায় ১৭ জন নিহতের ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে অস্ত্র আইন কঠোর করার দাবির মধ্যে ইউটিউব সদরদপ্তরে এ হামলার ঘটনা ঘটল।

ক্যালিফোর্নিয়ায় অ্যালফাবেট ইনকরপোরেশন গুগলের মালিকানাধীন ইউটিউবের এ সদরদপ্তরে ১৭০০ কর্মী কাজ করেন।

আত্মঘাতী নারীর পরিচয় কিংবা কেন এ হামলা, তার কারণ জানাতে পারেনি পুলিশ।

বিবিসি জানায়, মঙ্গলবার স্থানীয় সময় দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে গোলাগুলি শুরু হলে পুরো এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে, শুরু হয় ছুটোছুটি।

সন্দেহভাজন হামলাকারী দপ্তরটির বহিঃপ্রাঙ্গণ ও ডাইনিং এলাকায় এসে দুপুরের খাবার বিরতির সময়ে গুলি শুরু করে বলে প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে জানিয়েছে পুলিশ।

স্থানীয় গণমাধ্যমগুলো অজ্ঞাত সূত্রের বরাত দিয়ে হামলাকারী নারীর নাম নাসিম আঘদাম বলে জানিয়েছে। সান ব্রুনো পুলিশ ও ইউটিউবের মুখপাত্র জেসিকা মেসন তাৎক্ষণিকভাবে হামলাকারীর পরিচয় সংক্রান্ত খবরে মন্তব্য করতে রাজি হননি।

হামলাকারী নারীর সঙ্গে ওয়েবসাইট নাসিমেসাবজ ডটকমের যোগ ছিল বলেও দাবি মার্কিন গণমাধ্যমগুলোর। ওয়েবসাইটটিতে পারসী সংস্কৃতি, ভেজানিজম ও ইউটিউবের বিরুদ্ধে ব্যাপক বিষোদগার করা বেশ কয়েকটি পোস্টও আছে।

যেসব ব্যবহারকারী ইউটিউবের জন্য ভিডিও কনটেন্ট বানায়, তাদের সঙ্গে ভিডিও কনটেন্ট শেয়ারিং সাইটটি ন্যায্য লভ্যাংশ ভাগ করে নেয় না বলেও ওইসব পোস্টে অভিযোগ করা হয়েছে।

“ইউটিউবে বিকাশের ক্ষেত্রে সমান সুযোগ দেওয়া হয় না, ভিডিও শেয়ার করা হয় এমন কোনো সাইটেও না; আপনার চ্যানেল তখনই বিকশিত হবে, যখন তারা চাইবে,” নাসিমেসাবজ ডটকমের একটি পোস্টে দেখা মিলেছে এমন ক্ষোভের।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নাসিমেসাবজ নামের ইউটিউব অ্যাকাউন্টটি বন্ধ করে দেওয়া হয় বলে রয়টার্সের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্র সরকারের এক নিরাপত্তা কর্মকর্তা জানিয়েছেন, সন্ত্রাসবাদের সঙ্গে এ ঘটনার যোগসূত্র পাওয়া যায়নি।

আত্মঘাতী নারীর বয়স ৩৫ থেকে ৪০ এর মধ্যে ছিল; তিনি দক্ষিণ ক্যালিফোর্নিয়ায় থাকতেন বলে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর অজ্ঞাত এক সূত্রের বরাত দিয়ে জানিয়েছে এবিসি নিউজ।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প গুলির ঘটনায় শোক জানিয়েছেন। তিনি দ্রুত প্রতিক্রিয়া দেখানোয় আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর প্রশংসা করেছেন।

টুইটারের প্রধান নির্বাহী জ্যাক ডরসে বলেছেন, কেবল প্রতিক্রিয়া দেখানোর মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকলেই এ ধরনের ঘটনা বন্ধ হবে না।

“স্কুল, চাকরি ও আমাদের কমিউনিটি কেন্দ্রগুলোতে যেন আর কখনো এ ধরনের ঘটনা না ঘটে সেজন্য চিন্তা ও প্রার্থনা প্রয়োজন। আমাদের নীতি বদলানোর সময়ও পেরিয়ে যাচ্ছে,” টুইটারে লেখা প্রতিক্রিয়ায় বলেন তিনি।

ফেব্রুয়ারিতে ফ্লোরিডার স্কুলে বন্দুক হামলার পর গত মাসে ইউটিউব কর্তৃপক্ষ আগ্নেয়াস্ত্র ও আনুষাঙ্গিক যন্ত্রপাতি বিক্রি উৎসাহিত করে এমন পোস্টে নিষেধাজ্ঞা দেওয়ার কথা জানায়। কীভাবে বন্দুক বানানো যাবে, যেসব ভিডিওতে সেগুলো শেখানো হয় সেগুলো বাদ দেওয়ার কথাও ঘোষণা করেছিল তারা।