গুলশানের ডিএনসিসি মার্কেটের দুই শতাধিক দোকান পুড়ে ছাই

0
268

এস কে লিটন:

আবারো গুলশানের ডিএনসিসি কাঁচা বাজারে আগুনে পুড়ে ছাই হয়েছে দুই শতাধিকের বেশি দোকান। সেনা,নৌ ও বিমান বাহিনীসহ বিভিন্ন সংস্থার সহযোগিতায় ফায়ার সার্ভিসের ২০ টি ইউনিট তিন ঘন্টার প্রচেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

ওই দুর্ঘটনায় ৫ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। ৭ দিনের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেয়ার নির্দেশ দিয়েছে সিটি কর্পোরেশন। ক্ষতিগ্রস্থ দোকান মালিকদের সব ধরনের সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী তাইজুল ইসলাম।

ভোর আনুমানিক ছয়টা ৩০ মিনিট। গুলশান ডিএনসিসি কাচাঁবাজারে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে। আগুন নিয়ন্ত্রণে ফায়ার সার্ভিসের ২০ টি ইউনিট কাজ করে। প্রায় তিন ঘন্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণ আনলেও রক্ষা করতে পারেনি দুই শতাধিকের অধিক দোকানের মালামাল।

আগুন নেভানো হয়েছে ঠিকই,সব দোকানের মালামাল পুড়ে ছাই হেেয়ছে। কাচাঁবাজার হলেও,সবজি,মাছ মাংস ছাড়াও মার্কেটটিতে রয়েছে ভ্যারাইটিজ দাকোনও।

অসহায় দোকান মালিকরা পোড়া জিনিস গুলো মাঝেও,কোন জিনিস ভালো আছে কিনা,তা উদ্ধারেও ব্যস্থ থাকতে দেখা যায়। ক্ষতির পরিমাণ জানা না গেলেও,নিঃস্ব হয়ে গেছে দোকান মালিকরা।

এর আগে ২০১৭ সালে মার্কেটটি পুড়ে ছাই হলেও,সিটিকর্পোরেশন সহযোগীতার আশ্বাসে ক্ষতির তালিকা নিলেও,কোন অনুদান মিলেনি বলে অভিযোগ দোকান মালিকদের।

পুড়ে যাওয়া দাকোন মালিকদেও দাবী ১০ দিনের মধ্যে আর্থিক সহযোগীতাসহ দোকান বসানোর ব্যাবস্থা করবে সিটিকর্পোরেশন। ঢাকা উত্তরের বলছেন খুব দ্রুত সব ধরনের ব্যবস্থা করা হবে।