জাতিসংঘে সিরিয়া বিরোধী প্রস্তাবে ভেটো দিল রাশিয়া

0
98

জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে আমেরিকা ও তার মিত্রদের পক্ষ থেকে আনা একটি প্রস্তাবে ভেটো দিয়েছে রাশিয়া। ওই প্রস্তাবের খসড়ায় সিরিয়ার পূর্ব গৌতা এলাকার দুমা শহরে কথিত রাসায়নিক হামলার ব্যাপারে তদন্তের আহ্বান জানানো হয়েছিল।

দুমায় গত শনিবার রাসায়নিক হামলা হয়েছে বলে সিরিয়ায় তৎপর সন্ত্রাসীদের পাশাপাশি তাদের সমর্থক পাশ্চাত্য দাবি করলেও রাশিয়া বলছে, সেখানে কোনো রাসায়নিক হামলা হয়নি।

মঙ্গলবার রাতে নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে ভোটাভুটির পর রুশ রাষ্ট্রদূত ভ্যাসিলি নেবেনজিয়া বলেন, আন্তর্জাতিক শান্তি ও নিরাপত্তা রক্ষা এবং আমেরিকার খামখেয়ালিপনা বাস্তবায়নের কাজে আন্তর্জাতিক সমাজকে ব্যবহার ঠেকানোর লক্ষ্যে রাশিয়া ভেটো ক্ষমতা প্রয়োগ করেছে।

জাতিসংঘে নিযুক্ত রুশ রাষ্ট্রদূত আরো বলেন, সিরিয়ার বাস্তবতা সম্পর্কে বিশ্ব জনমতকে বিভ্রান্ত করার পাশাপাশি সংঘাত সৃষ্টি করার উদ্দেশ্যে আমেরিকা ও তার মিত্ররা এ প্রস্তাব পাস করতে চেয়েছিল।

তিনি আরো বলেন, আমেরিকা ও তার মিত্ররা কোনো দলিল-প্রমাণ উপস্থাপন ছাড়াই একটি স্বাধীন ও সার্বভৌম দেশকে এমন একটি ঘটনার জন্য অভিযুক্ত করছে যে ঘটনাটি ঘটেইনি। নেবেনজিয়া বলেন, সিরিয়ার দুমায় রাসায়নিক অস্ত্র প্রয়োগের কোনো ধরনের দলিল-প্রমাণ নেই।

দুমা নিয়ন্ত্রণকারী উগ্র জঙ্গি গোষ্ঠী জেইশুল ইসলাম গত শনিবার রাতে দাবি করে, ওই এলাকায় রাসায়নিক হামলা চালিয়ে সিরিয়া সরকার বহু মানুষকে হত্যা করেছে। দামেস্ক তাৎক্ষণিকভাবে ওই অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে। আমেরিকা ও তার মিত্র দেশগুলো সন্ত্রাসীদের পাশে দাঁড়িয়ে বিষয়টি নিয়ে ব্যাপক প্রচারণা যুদ্ধ চালাচ্ছে।

কিন্তু রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় সোমবার ঘোষণা করেছে, দেশটির সেনাবাহিনী সিরিয়ার দুমা এলাকায় রাসায়নিক অস্ত্র প্রয়োগের কোনো প্রমাণ পায়নি।

সিরিয়ার সেনাবাহিনী দেশটির রাজধানী দামেস্কের উপকণ্ঠে অবস্থিত পূর্ব গৌতা এলাকা সন্ত্রাসীদের কাছ থেকে পুনরুদ্ধারের লক্ষ্যে গত ২৬ ফেব্রুয়ারি থেকে অভিযান শুরু করে। দুমা ছাড়া পূর্ব গৌতার বাকি সব এলাকা বর্তমানে সেনাবাহিনীর নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।