জেট স্কি চালিয়ে জরিমানা গুনছে রোনালদো পুত্র

0
226

করোনার লকডাউন শেষে অনেক দেশেই জীবনযাত্রা স্বাভাবিক হতে শুরু করেছে। ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোও চলে গেছেন ইতালিতে। দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন মাঠে। তার দল জুভেন্তাসও শিরোপার লক্ষ্যে দুর্দান্ত গতিতে ছুটে চলেছে। ওদিকে রোনালদোর পরিবার ছুটি কাটাতে গিয়ে পড়েছে বিপাকে। রোনালদোর ১০ বছর বয়সী বড় ছেলে জেট স্কি চালাতে গিয়ে পুলিশি তদন্তের মুখে পড়েছে।

ছুটি কাটাতে রোনালদোর বান্ধবী জর্জিনা রদ্রিগেজ, রোনালদোর চার ছেলেমেয়ে, মা দোলোরেস আভেইরো ও বোন এলমা আভেইরো মিলে গিয়েছেন দক্ষিণ মাদেইরার পল দে মার দ্বীপে। সেখানে জাহাজে চেপে সুন্দর সময় কাটাচ্ছিলেন। কিন্তু ঝামেলা হলো রোনালদো জুনিয়রকে নিয়ে। বয়স কম হলেও সে বেশ সাহসী এবং শারিরীকভাবে ফিট। সেই ফিটনেসের প্রমাণ দিতেই কিনা একা একাই সমুদ্রে জেট স্কি চালানো শুরু করে সে! এটুকু হলেও ঠিক ছিল। কিন্তু তার ফুপু এলমা আভেইরো সেই জেট স্কি চালনার ভিডিও ইনস্টাগ্রামে পোস্ট করতেই গোলমালের শুরু হয়।

পর্তুগালের আইন অনুযায়ী প্রাপ্তবয়স্ক না হলে জেট স্কি চালানো নিষেধ, জেট স্কি চালানোর লাইসেন্সও দেওয়া হয় না অপ্রাপ্ত বয়স্কদের। লাইসেন্স ছাড়া জেট স্কি চালানো দেশটিতে অপরাধ হিসেবেই গণ্য।বয়স মাত্র ১০ বছর বলে রোনালদো পুত্রের স্বাভাবিকভাবেই নেই সেই লাইসেন্স। তাই ভিডিওটা পোস্ট করে অল্প সময় পর মুছে ফেলেন এলমা। কিন্তু ততক্ষণে পুলিশের নজরে পড়ে যায় সেই ভিডিও। তারা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। লাইসেন্স ছাড়া জেট স্কি চালালে ২৬৮ পাউন্ড (২৮ হাজার ৪২৩ টাকা) থেকে দুই হাজার ৬৮৮ পাউন্ড (২ লাখ ৮৫ হাজার টাকা) পর্যন্ত জরিমানা হতে পারে।