ঢাকা টাঙ্গাইল মহাসড়কে যানজটে যাত্রীদের ভোগান্তিতে দুঃখ প্রকাশ ওবায়দুল কাদেরের 

0
192

ডেনী দ্রং: রেলে শিডিউলের চরম বিপর্যয় আর সড়ক পথে যানজট, ভোগান্তি নিয়েই ঘরে ফিরছেন সাধারণ মানুষ। শেষ সময়ে এসে এমন দুর্ভোগ মেনে নিতে পারছেন না যাত্রীরা। তবুও স্টেশনে, টার্মিনালে বসে বাড়ি ফেরার অপেক্ষায় প্রহর গুণছেন সবাই। ঢাকা টাঙ্গাইল মহাসড়কে সৃষ্ট যানজটে যাত্রীদের অবস্থা বিবেচনায় দুঃখ প্রকাশ করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

ঈদুল আযহা  উপলক্ষে শেষ মুর্হুতে কমলাপুর রেল স্টেশনে সবার মধ্যে বাড়ি যাওয়ার ব্যস্ততা। কিন্তু ভাগ্য যেন সহায় হলো না। কারন বেশির ভাগ ট্রেনের শিডিউল বিপর্যয়। বেশির ভাগ ট্রেনই ছাড়ছে বেশ কয়েক ঘন্টা বিলম্বে। কখন ট্রেন আসবে আর কখন ছাড়বে তার নিশ্চয়তা পাচ্ছেন না যাত্রীরা। তাই স্টেশনে অপেক্ষার প্রহর আর ভোগান্তি।এর দায় স্বীকার করে দুঃখ প্রকাশ করেছে রেল কর্তৃপক্ষ।

কোন যাত্রী টিকিট ফেরত দিতে চাইলে সেটা ফেরত নিচ্ছে কর্তৃপক্ষ। এদিকে সড়ক পথেও দূর্ভোগহীন যাত্রা করতে পারছেন না যাত্রীরা। কোথাও কোথাও দীর্ঘ যানজট আর সড়কে যানবাহনের ধীর গতির কারনে বাসেও ঘটছে শিডিউল বিপর্যয়।

নিজ গন্তব্যের বাসে কখন উঠতে পারবেন, তা নিয়ে সংশয় যাত্রীদের। এদিকে সায়দাবাদ বাস টার্মিনাল পরিদর্শনে এসে, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, কিছু কিছু সড়কে যানজট তৈরী হচ্ছে তবে সবগুলোতে নয়। দুপুরের পর সড়কের পরিস্থিতির উন্নতি হবে বলে উল্লেখ করেন ওবায়দুল কাদের।
এছাড়া সড়ক এবং যানবাহনে অনিয়ম পেলে ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলেও জানান সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী।