এস এম খোরশেদ আলম :

১৯৭১ সালের স্মৃতি বিজরিত ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের ৩৪ নম্বর ওয়ার্ডের ভিতর দিয়ে বয়ে গেছে ঐতিহাসিক রায়ের বাজার খাল। দেশের স্বাধীনতা অর্জনে হাজারো শহিদের রক্তে রঞ্জিত হয়েছে এই খালের পানি। বিট্রিশ আমলে বিশালকার এই খালের ঘাটেই ভিড়তো জাহাজ। বৈদেশিক বাণিজ্যও হত এখান থেকেই।

তবে বর্তমানে দখল করে বাড়ীঘর বানানো আর দোকানপাট বসানোর ফলে ভরাট হয়ে গেছে খালটি। এরই মধ্যে আবার বৈদ্যুতিক খুটি বসিয়ে পানি নিস্কাসনের পথ বন্ধ করেছে প্রভাবশালীরা। সরকার একটু নজর দিলে খালটি ফিরে পেতে পারে তার পুরনো ঐতিহ্য।

ময়লা ফেলে ও বাড়ীঘর বানিয়ে দখল ও ভরাটের এ করুণ চিত্র ঢাকা দক্ষিন সিটি কর্পোরেশনের রায়ের বাজার খালের। খালের মধ্যেই বৈদ্যুতিক স্থাপনা বসিয়ে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে এলাকার পানি সঞ্চালনের পথও। শস্য ক্ষেতের এই চিত্র দেখে মানুষ ভুলেই গেছে, এখানে কখনও ১২০ ফুট প্রস্থ আর মাইলের পর মাইল বিস্তৃত খাল ছিল কিনা।

খালের মধ্যেই ফলসে ফসল, আবার বাড়ী বানিয়ে বসবাস করছেন নিম্ন আয়ের মানুষ। আর সুবিধা ভোগ করছেন অবৈধ দখলদাররা।

কিন্তু পুরনো স্মৃতি উদ্ধারের নানা গল্প শোনানো হলেও বাস্তবে দেখছেন না কেউ। খাল উদ্ধারে সম্মিলিত পদক্ষেপ নেয়া প্রয়োজন বলে মনে করেন ওয়ার্ড কাউন্সিলর।