দেশের চিকিৎসায় আস্থা নেই রোগীর, হাজারো মানুষ ছুটছে বিদেশে

0
93

মাহবুব সৈকত : দেশে রয়েছে অনেক সনামধন্য চিকিৎসক, দুরারোগ্য ব্যাধির চিকিৎসায়ও পিছিয়ে নেই দেশ। বিভিন্ন কারনে তবুও চিকিৎসকদের প্রতি আস্থা সংকট কাটছে না রোগী এবং রোগীর স্বজনদের।

ফলে প্রতিদিনই পার্শ্ববর্তী দেশ ভারতসহ বিভিন্ন দেশে চিকিৎসায় পারি দিচ্ছেন অবস্থা সম্পন্নরা। চিকিৎসকদের মুল ব্রত সেবা, সেটা মনে রেখে রোগ নির্ণয় এবং চিকিৎসা দিলে এই সংকট দুর হবে বলে মত বিশ্লেষকদের।

রাজধানীতে এসে বিশেষায়িত হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি ফেরায় আনন্দ থাকার কথা থাকলেও তিক্ত অভিজ্ঞতা তা কেড়ে নিয়েছে। অধিকাংশ সরকারী হাসপাতালের রোগী কিম্বা স্বজনদের অভিজ্ঞতা এর ব্যাতিক্রম নয়।

সরকারের কঠোর হুশিয়ারীতেও চিকিৎসায় ব্যবহৃত অতি গুরুত্বপূর্ন বিভিন্ন সরঞ্জামের অতিরিক্ত মূল্য আদায় থেমে নেই। রোগীদের চিরাচরিত অভিযোগের সমাধানও করতে পারছে না প্রশাসন। রোগ নিয়ে চিকিৎসকদের সাথে কথা বলাতো দুরে থাক, হাসপাতালের চতুর্থ শ্রেনীর কর্মচারীদের সিন্ডিকেটও ম্লান করে দিচ্ছে অর্জন।

অভিযোগ রয়েছে, খ্যাতি সম্পন্ন কিম্বা নাম ডাক কিছুটা কম যাদের তাদেরও প্রাইভেট প্রাকটিসের দিকেই মনযোগী বেশি। কিন্তু অঢেল টাকা খরচ করেও চিকিৎসায় কতটুকু সন্তুষ্ট রোগীরা। আর এ কারনেই চিকিৎসায় বিদেশ মুখিতা । প্রতিদিনই পাশ্বর্তী দেশে চিকিৎসা নিতে ছুটছেন হাজারো মানুষ।

দেশের চিকিৎসা ব্যাবস্থার প্রতি আস্থা সংকটের কারনগুলো সবার কাছে প্রায় একই রকম।
তবে এ বিষয়ে দৃষ্টিভঙ্গির পার্থক্য রয়েছে চিকিৎসকদের। তবে সেবার মোড়কে বেসরকারী বানিজ্যিক হাসপাতালগুলোর অতি মুনাফার ক্রিড়ানক হওয়ার লজ্জায় বিব্রত চিকিৎসক সমাজের প্রতিনিধিরা।

সবারই প্রত্যাশা সম্মিলিত প্রচেষ্টায় হয়তো রোগীদের আস্থা ফিরবে দেশের চিকিৎসক এবং চিকিৎসা ব্যবস্থার প্রতি। কিন্তুু সময়টা কবে তা জানা নেই কারোই।