নজরুল দিবসেই সীমাবদ্ধ কুমিল্লার নজরুল ইন্সটিটিউটের কার্যক্রম

0
82

মানবতা, সাম্য ও বিদ্রোহের কবি কাজী নজরুল ইসলামের জীবন ও সাহিত্য কর্মের বিস্তৃত অধ্যায় জুড়ে নজরুল নিয়ে চর্চা ও গবেষনার জন্য ২০১৩ সালে কুমিল্লায় প্রতিষ্ঠা করা হয় নজরুল ইনষ্টিটিউট কেন্দ্র। প্রতিষ্ঠার ৫ বছরেও বিস্তৃত হয়নি নজরুল ইন্সটিটিউটের কার্যক্রম। নজরুল প্রেমীদের ক্ষোভ, ইন্সটিটিউটটি এখনো নজরুল দিবসের কার্যক্রমেই সীমাবদ্ধ।

নজরুল প্রেমীদের ক্ষোভ, ইন্সটিটিউটটি এখনো নজরুল দিবসের কার্যক্রমেই সীমাবদ্ধ। কবি নজরুলের ব্যক্তিগত জীবনে কুমিল্লার নার্গিস ও প্রমীলার সাথে প্রেম, বিরহ ও বিয়ে। কবির সংগীত শিল্পী হিসেবে আর্বিভাব এবং ব্রিটিশ বিরোধী আন্দোলনে কারাবরনের ইতিহাস রচিত হয়েছে এই কুমিল্লায়।

১৯২১ সালের বসন্তে কুমিল্লায় প্রথম পা রেখেই মুরাদনগর উপজেলার আলী আকবর খানের বাড়িতে সৈয়দ নার্গিস আরা খানমকে বিয়ে করেন। বিয়ের রাতেই অজ্ঞাত কারনে বেরিয়ে পড়েন। শহরের নজরুল এ্যাভিনিউ এলাকায় পরিচয় হয় আশালতা সেনগুপ্তের সাথে। প্রেম এবং বিয়ের পর কবি তার নাম দেন প্রমীলা। দু’বছরে ৫ বার মুরাদনগরে এলেও লিখেছেন অসংখ্য জনপ্রিয় গান ও কবিতা।

নজরুল গবেষক অধ্যাপক শান্তিরঞ্জন ভৌমিক বলেন, কুমিল্লা ও মুরাদনগরের দৌলতপুরে রয়েছে নজরুলের অসংখ্য স্মৃতিচিহ্ন। ২০১৫ সালে কুমিল্লায় নজরুল ইনষ্টিটিউট স্থাপিক হলেও ব্যাপক নজরুল চর্চা শুরু হয়নি।

এখানে অবশ্য চালু হয়েছে নজরুল বিষয়ক নানা কোর্স। রয়েছে নজরুল যাদুঘর ও লাইব্রেরী। কুমিল্লাবাসীর দাবি, প্রতিবছর জাতীয় ভাবে কুমিল্লায় নজরুল জয়ন্তী পালন করা হোক।