নারীর ক্ষমতায়নে নতুন উচ্চতায় বাংলাদেশ (ভিডিও)

0
161

রাকিব হাসান : বিশ্বের অন্যান্য দেশের সাথে তাল মিলিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশের নারীরাও। পুরুষদের পাশাপাশি দেশের অর্থনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে নারীরা। নারী বান্ধব সরকারের প্রয়োজনীয় পদক্ষেপের ফলে কর্মক্ষেত্রেও শীর্ষে অবস্থান করছে নারীরা।

বিগত ১০ বছরে নারীর ক্ষমতায়নে সরকারের অর্জন অনেক। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে রূপকল্প ২০২১ বাস্তবায়নে নারীর ক্ষমতায়নে নেয়া হয়েছে নানা উদ্যোগ। তৈরী করা হয়েছে বেশ কিছু আইন-নীতি ও বিধিমালা।

নারীর কাজের উপযুক্ত পরিবেশ তৈরিতেও সহায়ক উদ্যোগ নিয়েছে সরকার। যার মধ্যে মাতৃত্বকালীন ছুটি তিন মাস থেকে দুই ধাপে ছয় মাস করা, সন্তানের পরিচয়ে বাবার সঙ্গে মায়ের নাম যুক্ত করা, ইউনিয়ন ডিজিটাল সেন্টারে ছেলের পাশাপাশি একজন নারী উদ্যোক্তা নিশ্চিত করা, মেয়েদের তথ্য প্রযুক্তি বিষয়ে প্রশিক্ষণ দিতে তথ্য আপা চালুসহ নানা সুযোগ সুবিধা।

রাজনৈতিক ক্ষমতায়নে নারীর অংশগ্রহনের মান হিসেবে গ্লোবাল জেন্ডার গ্যাপ রিপোর্ট ২০১৬ অনুযায়ী বাংলাদেশ ষষ্ঠ স্থানে। যা দক্ষিণ এশিয়ার যে কোন দেশের চেয়ে ভালো।

বর্তমানে বিচারপতি, সচিব, ডেপুটি গভর্নর, রাষ্ট্রদূত, সশস্ত্র বাহিনী, জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার, মানবাধিকার কমিশনসহ গুরুত্বপূর্ণ পদে দায়িত্ব পালন করছেন নারীরা।

নারী শিক্ষায় উন্নয়ন এবং ব্যবসায়িক উদ্যোগে ভূমিকার জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে গ্লোবাল উইমেনস লিডারশিপ অ্যাওয়ার্ড দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের গ্লোবাল সামিট অব উইমেনস। নারীর ক্ষমতায়নে ২০১৬ সালে জাতিসংঘের প্ল্যানেট ৫০-৫০ চ্যাম্পিয়ন ও এজেন্ট চেঞ্জ অ্যাওয়ার্ডে ভূষিত হয়েছেন শেখ হাসিনা।

বাংলাদেশের নারীর বিজয় পতাকা উড়ছে এভারেস্টের চূড়া থেকে ফুটবল-ক্রিকেট মাঠ অবধি।