প্রথম দিন শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে ৩৭৪ রান সংগ্রহ করেছে টাইগাররা

0
114

চট্টগ্রাম টেস্টে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে বড় সংগ্রহের পথে বাংলাদেশ। মুমিনুলের অপরাজিত দেড়শতকে প্রথম দিন শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে ৩৭৪ রান সংগ্রহ করেছে টাইগাররা।

১৭৫ রানে অপরাজিত আছেন মুমিনুল হক, ৯২ রান করেন মুশফিকুর রহিম।

শেষবেলায় এসে একটু আক্ষেপ রয়েই গেল টাইগারদের। মুশফিকুর রহীম একটুর জন্য সেঞ্চুরি পেলেন না, পরের বলেই লিটন ফিরলেন বোকার মতো; দিনের মাত্র কয়েক ওভার বাকি থাকতে। তাতেই চট্টগ্রাম টেস্টে প্রথম দিন শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৪ উইকেটে ৩৭৪ রান।

মুুমিনুল হককে সঙ্গে নিয়ে ২৩৬ রানের বড় এক জুটি গড়েছিলেন মুশফিকুর রহীম। মুুমিনুল সেঞ্চুরি তুলে ডাবলের দিকে এগিয়ে যাচ্ছেন। সেঞ্চুরিটা পাওনা ছিল মুশফিকেরও। কিন্তু মাত্র ৮ রানের জন্য তিন অংকের ম্যাজিক ফিগারটা ছোঁয়া হলো না তার। সুরাঙ্গা লাকমলের শিকার হয়ে ফিরলেন ৯২ রানে।

লাকমলের বলে ব্যাট ছুইয়ে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিয়েছেন মুশফিক। পরের বলে বোকার মতো আউট হলেন লিটন দাসও। লাকমলের অফস্ট্যাম্পে ঢোকা বলটি ছেড়ে দিতে চেয়েছিলেন তিনি। উইকেট উপড়ে যায় তাতে। মাত্র ১ বলে শুন্য করে বোল্ড লিটন।

এরপর ক্রিজে আসেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। দিনের বাকি সময়টা মুমিনুলকে সঙ্গে নিয়ে ভালোভাবেই পার করে দিয়েছেন তিনি। দ্বিতীয় দিনে ৯ রান নিয়ে ব্যাট করতে নামবেন মাহমুদউল্লাহ। ডাবল সেঞ্চুরির অপেক্ষায় থাকা মুমিনুল নামবেন ১৭৫ রান নিয়ে। দুর্দান্ত এই ইনিংসে এখন পর্যন্ত ২০৩ বল মোকাবেলা করেছেন তিনি। ১৬টি চারের পাশে একটি ছক্কাও হাঁকিয়েছেন এই লিটল ডায়নামো।

এর আগে টসে জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুটা বেশ ভালো করেছে বাংলাদেশ। তামিম ইকবাল আর ইমরুল কায়েস উদ্বোধনী জুটিতে তুলেছেন ৭২ রান। দিলরুয়ান পেরেরার দুর্দান্ত এক ডেলিভারিতে তামিম বোল্ড হয়েছেন ৫২ করে।

এরপর ৪০ রানে ভুল এলবিডব্লিউয়ের শিকার হয়েছেন ইমরুল কায়েস। লক্ষ্ণ সান্দিকানের বলে আম্পায়ার আঙুল তুলে দিলে রিভিউ নেয়ার সাহস করেনি বাংলাদেশ। অথচ টিভি রিপ্লেতে দেখা যায় বল স্ট্যাম্পের অনেক উপর দিয়ে চলে যাচ্ছিল।

ইমরুল ফেরার পর বড় জুটি গড়েছেন মুমিনুল হক আর মুশফিকুর রহীম। তাদের জুটিটি ছিল ২৩৬ রানের। তবে এই জুটি ভাঙার পরই কিছুটা বিপদে পড়েছে টাইগাররা।