বাজেট উপস্থাপনের পরদিনই বিভিন্ন পণ্যের দাম বাড়িয়ে দিয়েছে ব্যবসায়ীরা

0
160

সাইদুর রহমান আবির:

বাজেট উপস্থাপনের পরদিন থেকেই বিভিন্ন পন্যের মূল্য বৃদ্ধি করে দিয়েছে ব্যবসায়ীরা। শিশুখাদ্য সহ বেশ কয়েকটি পণ্য ক্রয় করতে এখনই গুনতে হচ্ছে অতিরিক্ত টাকা।

অথচ বাজেট পাশ হওয়ার আগে কোনভাবেই পন্যের মূল্য বৃদ্ধির সুযোগ নেই আইনে। একাদশ জাতীয় সংসদের প্রথম প্রস্তাবিত বাজেট উপস্থাপন।

প্রস্তাবিত বাজেটে যেসব পন্যের মূল্যবৃদ্ধি করার প্রস্তাব করা হয়েছে, তা পাশ হওয়ার আগে মূল্যবৃদ্ধির আইনি কোন সুযোগ না থাকলেও বাজারগুলোতে শুরু হয়েছে দাম বাড়ানোর প্রতিযোগীতা।

প্রস্তাবিত বাজেটে নিত্যপ্রয়োজনীয় পন্যের মধ্যে গুড়োদুধসহ শিশুখাদ্য এবং বাসমতি চালের মূল্যবৃদ্ধির প্রস্তাব করা হয়েছে,এরমধ্যেই মূল্যবৃদ্ধি করে দিয়েছে ব্যবসায়ীরা।

প্রস্তাবিত বাজেটে থাকা গুল জর্দ্দার মূল্যও বৃদ্ধি করা হয়েছে ইতিমধ্যেই। এছাড়াও এই সুযোগে প্রস্তাবে নেই এমন অনেক পন্যেরও দাম বাড়িয়েছে অসাধু ব্যবসায়ীরা।

এবিষয়ে দেখভালের দায়িত্বে থাকা কর্তৃপক্ষের সহযোগিতা চাইলেন ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতারা।দ্রুতই বেআইনিভাবে নিত্যপয়োজনীয় পন্যের মূল্যবৃদ্ধি বন্ধে মাঠে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষন অধিদফতর। অসাধু ব্যবসায়ীদের অনিয়ম বন্ধ হলে কিছুটা হলেও স্বস্তি পেত ভোক্তারা।