ভোলায় সয়াবিনের বাম্পার ফলন

0
116

আরিফুর হোসেন লিটন : ভোলায় এবার সয়াবিনের বাম্পার ফলন হয়েছে। এখন চলছে ফসল তোলা ও ভাংগানোর কাজ। বাড়ি থেকে ব্যবসায়ীরা কিনে নিচ্ছে সয়াবিন।ভবিষ্যতে ধানের পরিবর্তে কৃষকরা সয়াবিন আবাদেই বেশি ঝুঁকে পরবেন বলে জানিয়েছে কৃষি বিভাগ।

ভোলা সদর,দৌলতখান,বোরহানউদ্দিন,লালমোহন,তজুমদ্দিন,চরফ্যাশন ও মনপুরা এ সাত উপজেলায় এবার ৭ হাজার ২শ ২৩ হেক্টর জমিতে সয়াবিন আবাদ করেছে কৃষকরা।

এ অঞ্চলে বারি সয়াবিন ও সোহাগ নামে এ দুই জাতের সয়াবিনের চাষ হয় বেশি। সয়াবিন চাষে তেমন কোন খরচ ও পোকামাকরের আক্রমন না থাকায় দিন দিন ভোলায় সয়াবিন চাষের পরিধি বাড়ছে।

সয়াবিন দিয়ে পোলট্রি খাবার, বিভিন্ন খাবার যেমন বিস্কিট, ছাতু তৈরী হয়। জানুয়ারি ফেব্রুয়ারীর প্রথম দিকে সয়াবিন বপন শুরু হয়। ৯০ থেকে ১০০ দিনের মধ্যে গাছে ফলন আসতে শুরু করে।

মেঘনা ও তেতুলিয়ার চরাঞ্চলে সয়াবিনের আবাদ হয় বেশি বলে জানিয়েছে স্থানীয় কৃষি বিভাগ। মোঃ রিয়াজ উদ্দিন, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা, ভোলা সদর, ভোলা।

এবার আবহাওয়া অনুকুলে থাকায় হেক্টর প্রতি ফলন এসেছে আড়াই মেট্রিক টন। প্রতিমন সয়াবিন বিক্রি হচ্ছে ১ হাজার থেকে ১২শ টাকা পর্যন্ত।