মুসলিম হওয়ায় ‘মহাভারত’ থেকে পিছিয়ে আসছেন আমির খান !

0
917

এগিয়েছিলেন অনেকটাই। শোনা যাচ্ছে, ঠিক ততটাই নাকি পিছিয়ে এসেছেন আমির খান। ‘মহাভারত’-এর মতো মহাকাব্য নিয়ে আদৌ আর তিনি কাজ করবেন কি না তা নিয়ে জোরদার জল্পনা তৈরি হয়েছে। তবে কি আর কৃষ্ণরূপী আমিরকে দেখা যাবে না পর্দায়? প্রশ্ন আছে, কিন্তু জবাব এখনই মিলছে না।

আসলে পরিস্থিতিই এমন জায়গায় গিয়েছে, যেখানে ‘পিরিয়ড পিস’, ‘পুরাণ’, ‘মিথ’, ‘ইতিহাস’ বা ‘মহাকাব্য’ নিয়ে কাজ করতে গেলে পরিচালক-প্রযোজকদের পাঁচ বার ভাবতে হচ্ছে। ‘পদ্মাবত’ এর ঘা এখনও দগদগে বলিউডের মনে।

সেটে আগুন-ভাঙচুরের পাশাপাশি পরিচালক-কলাকুশলীদের যেভাবে মারধর, নাক-কান কেটে নেওয়ার পাশাপাশি খুনের হুমকি দেওয়া হয়েছিল, তাতে ভাবনা হওয়াটাই স্বাভাবিক। একটা কোনও গন্ধ পেলেই হল। এক দল লোক যেন মুখিয়ে থাকেন, ঝাঁপিয়ে পড়বেন বলে। যুক্তি-বুদ্ধির খুব একটা ধার যে তাঁরা ধারেন না, তা সাম্প্রতিক প্রচুর ঘটনায় প্রমাণিত। কাজেই আমিরকেও ভাবতে হচ্ছে।

আমিরের ভাবনার আরও একটা কারণ রয়েছে। মুসলিম হয়ে কৃষ্ণের চরিত্রে তাঁর অভিনয় করার প্রসঙ্গ নিয়ে ইতিমধ্যেই একদল লোক মুখ খুলতে শুরু করেছেন। সমস্যার শুরু হয়েছিল কিছু দিন আগেই।

ফ্রাসোয়াঁ গতিয়ের নামে ভারতে বসবাসকারী এক ফরাসি সাংবাদিক টুইট করেন, মুসলিম হয়ে কীভাবে মহাভারতের মতো হিন্দুদের পবিত্র মহাকাব্যে অভিনয় করতে পারেন আমির? ইসলামের কোনও ধর্মগুরুর ভূমিকায় যদি হিন্দু অভিনেতাকে দেখা যায়, তবে কি মুসলিমরা মেনে নেবেন?’ কিন্তু, পাল্টা প্রশ্ন উঠছে। প্রথমত, কৃষ্ণ কোনও ধর্মগুরু নন, আর যদি হতেনও, তা হলেও বা আমির কেন করতে পারবেন না?

কিন্তু, আমিরকে ভাবতে হচ্ছে। কারণ, এর আগে দেশজুড়ে অসহিষ্ণুতা প্রসঙ্গে মন্তব্য করে তাঁকে ট্রোলড হতে হয়েছিল। শিল্প-সাহিত্যের উপর অসহিষ্ণু আঘাত এ দেশে যদিও নতুন কিছু নয়। প্রশ্ন উঠছে, এই ফ্রাসোয়াঁদের মতো মানুষদের মদত দিচ্ছেন কারা?

বলিউডের একটা অংশ এর পেছনে অন্য একটা তত্ত্বের কথা তুলে ধরছেন। তাঁদের মতে, বহু সমালোচনা সত্ত্বেও আমির, শাহরুখ, সালমান এই তিন ‘খান’ এখনও পর্যন্ত বলিউডের বড় শক্তি। শুধু তাঁদের ঘিরেই ইন্ডাস্ট্রি কয়েক হাজার কোটি টাকার ব্যবসা করে। তবে কি ধর্মের ধুয়ো তুলে সেই শক্তিকে তছনছ করার চেষ্টা করতেই ফ্রাসোয়াঁদের মদত দেওয়া হচ্ছে?

তবে, ‘মহাভারত’ নিয়ে সিনেমা করার ভাবনায় অনেক দূর এগিয়ে গিয়েছিলেন আমির খান। শোনা গিয়েছিল, এটা নাকি তাঁর ড্রিম প্রজেক্ট। বলিউডের একটি সূত্র বলছে, পুরাণ বা ইতিহাস নির্ভর কোনও বিষয় নিয়ে সিনেমা করাটা খুব কঠিন। এই সত্যিটা জেনেই তো ‘মহাভারত’ তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছিলেন আমির। সেখান থেকে পিছু হঠছেন কেন?

আসলে ‘মহাভারত’ নিয়ে সত্যিই ছবি করলে যে এ হেন আঘাত আরও বেশি করে আসবে তা বোধহয় এখনই আঁচ করতে পারছেন আমির খান। সে কারণেই সম্ভবত এই মুহূর্তে ‘মহাভারত’ তৈরি করতে চান না তিনি। যদিও এ নিয়ে এখনও পর্যন্ত প্রকাশ্যে মুখ খোলেননি আমির।

তবে, আরও একটা তত্ত্ব বলিউড সূত্রে উঠে আসছে। এই মুহূর্তে ‘ঠগস অব হিন্দুস্তান’ নিয়ে রাজস্থানে ব্যস্ত রয়েছেন আমির। শোনা যাচ্ছে, অন্য কোনও প্রযোজনা সংস্থার সঙ্গে এই মুহূর্তে চুক্তি করতে চাইছেন না তিনি।

কারণ কোনও একটি ছবির জন্য নাকি আমিরকে বেশ কয়েক বছর চুক্তিবদ্ধ থাকতে হবে। সে সময় অন্য কোনও ছবির কাজ তিনি করতে পারবেন না। সেই ছবিই ‘মহাভারত’।