মোদিকে ‘বিরুশকার’ বিয়ের নিমন্ত্রণ

0
99

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে বিয়ের নিমন্ত্রণ দিতে গিয়েছিলেন আনুশকা শর্মা ও বিরাট কোহলি।
বৃহস্পতিবার রাতে নয়াদিল্লির তাজ ডিপ্লোম্যাটিক এনক্লেভের দরবার হলে আনুশকা শর্মা ও বিরাট কোহলির প্রথম বিবাহোত্তর সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হবে।

এ আয়োজনে উপস্থিত থাকবে বিরাট ও আনুশকার পরিবারের স্বজন ও বন্ধু-বান্ধব। তবে, ভারতীয় ক্রিকেট দলের অধিনায়কের বিবাহোত্তর সংবর্ধনা হবে আর সেখানে দেশের প্রধানমন্ত্রী নিমন্ত্রণ পাবেন না, তাই কি হয়? গতকাল বুধবার সন্ধ্যায় ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে বিয়ের নিমন্ত্রণ জানাতে গিয়েছিলেন মিস্টার অ্যান্ড মিসেস কোহলি।

বিয়ের নিমন্ত্রণ জানাতে গিয়ে নবদম্পতি কিছু সময় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে কাটিয়েছেন। সেখানে নরেন্দ্র মোদির হাতে বিরুশকা তাঁদের বিয়ের নিমন্ত্রণপত্র ও কিছু উপহার তুলে দেন। আজ রাত সাড়ে আটটায় শুরু হওয়া ‘বিরুশকার’ এই বিবাহোত্তর সংবর্ধনায় মোদি আসবেন কি না, তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে, তাঁর অফিশিয়াল টুইটারে এই জুটিকে তিনি শুভকামনা জানিয়েছেন।

২৬ ডিসেম্বর মুম্বাইয়ে বলিউড ও ক্রিকেট জগতের ব্যক্তিত্বদের নিয়ে একটি জমকালো বিবাহোত্তর সংবর্ধনার আয়োজন করেছেন বিরাট ও আনুশকা। শোনা গেছে, বিরাটের পক্ষ থেকে এ অনুষ্ঠানের কার্ড সবার আগে পাঠানো হয়েছে ক্রিকেটার শচীন টেন্ডুলকারের বাড়িতে। আর আনুশকা প্রথম নিমন্ত্রণপত্র পাঠিয়েছেন শাহরুখ খানকে।

১১ ডিসেম্বর সকালে ইতালির তাসকেনি প্রদেশের ফ্লোরেন্সে এক ঐতিহ্যবাহী রিসোর্টে বিরাট কোহলির সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধেন আনুশকা শর্মা। বিয়ের পর টুইটারে একটি যৌথ বিবৃতিতে নবদম্পতি বলেন, ‘আজ আমরা দুজন একে অন্যের সঙ্গে সারা জীবন ভালোবাসার বন্ধনে আবদ্ধ থাকার প্রতিজ্ঞা করেছি।’ এরপর তাঁরা ফিনল্যান্ডে গিয়ে সংক্ষিপ্ত হানিমুন সেরে এসেছেন। দেশে ফিরে নবদম্পতি উঠেছেন দিল্লিতে বিরাট কোহলির মায়ের বাড়িতে। মুম্বাইতে বিবাহোত্তর সংবর্ধনার অনুষ্ঠান শেষে বিরাট আর আনুশকা দক্ষিণ আফ্রিকায় রওনা হবেন। সেখানে বিরাট কোহলির ক্রিকেট সিরিজ শেষ হলে ফের মধুচন্দ্রিমা যাপন করবেন এই নতুন দম্পতি। তারপরেই কোমর বেঁধে কাজে নেমে পড়তে হবে আনুশকাকে।