হাসান জাকির :

রামপুরা ও মালিবাগ এলাকার অধিকাংশ রাস্তার মোড়ে মোড়ে সৃষ্ট জলাবদ্ধতা ও খানা খন্দে অতিষ্ঠ এলাকাবাসী। সরকারী রাস্তার দুপাশ দখল করে ফেলে রাখা বিভিন্ন বহুতল ভবনের নির্মান সামগ্রীতে বিনষ্ট হচ্ছে নাগরিক সৌন্দর্য। অনিয়মতান্ত্রিক ভাবে এগিয়ে চলা এলাকাবাসী মাইটিভির ক্যামেরায় নিজেদের দুর্ভোগের চিত্র তুলে আনতেই যেন হাঁফ ছেড়েছেন।

রাজধানীর মালিবাগ চৌধুরিপারার প্রধান সড়কটি জলাবদ্ধতার কারণে এলাকাবাসীর সকল কর্মকাণ্ড ধীরগতি কর দিয়েছে। রাস্তাটি দিয়ে শুধু স্থানীয় লোকজনই নয় যাতায়ত করে বিভিন্ন স্কুল কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা।

মাইটিভির এই রাজধানীর টিমের ক্যামেরা মালিবাগ চৌধুরিপারায়। পুরো এলাকাটি জুড়ে বেশ কয়েকটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, মসজিদ, মাদ্রাসা ও সরকারী বেসরকারী বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান। সরকারী রাস্তার দুই ধার দখলে রয়েছে বিভিন্ন বহুতল ভবনের নির্মান সমগ্রীতে। চিত্রটি মাইটিভির এই রাজধানী টিমের ক্যামেরায় বন্দি করতেই শুরু হয় প্রভাবশালীদের সঙ্গে মাইটিভি প্রতিবেদকের বাক বিতন্ডা।

প্রতিবেদককে দেয়া হয় হুমকিও।

এদিকে খিলগাঁও এলাকার চিত্রদেখে হতভম্ব এইরাজধানী টিমের ক্যামেরা। স্থানীয়দের কথায় কিছুদিন পূর্বেই নাকি মশা মাছির উপদ্রব থেকে এলাকাবাসীকে রক্ষা করতে পরিষ্কার ও পয়নিষ্কাশন করা হয় লেকটি। কিন্তু পুরো লেক এলাকাটির চিত্র দখল দারিত্বের।

নাগরিক সৌন্দর্য বর্ধন প্রক্রিয়ায় কোন প্রকার দখল দারিত্ব বরদাস্ত করা হবে না এমন হুঁশিয়ারী দিয়ে স্থানীয় জনপ্রতিনিধি একেএম রহমত উল্ল্যাহ স্থানীয়দের বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় আরো সচেতন হবার পরামর্শ দেন।