শুধু স্বাস্থ্যখাতেই নয়, যেকোনো খাতের দুর্নীতি রোধে প্রধানমন্ত্রী জিরো টলারেন্স নীতিতে অটল: কাদের

0
397

অপরাধী দলীয় পরিচয় কিংবা ক্ষমতাবান হলেও ছাড় দেওয়া হবে না বলে উল্লেখ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেন, শুধু স্বাস্থ্যখাতেই নয়, যেকোনো খাতের অনিয়ম, অন্যায়, দুর্নীতি রোধে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জিরো টলারেন্স নীতিতে অটল

রবিবারসরকারি বাসভবন থেকে নিয়মিত ব্রিফিংয়ে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সরকার ভিআইপি কালচারে বিশ্বাসী নয়। এ সংকটে এমন চর্চাকে সরকার নিরুৎসাহী করে।

সব রোগীকে সমান চোখে দেখে চিকিৎসাসেবা দিতে সরকারি হাসপাতালসহ চিকিৎসাবিষয়ক সংশ্লিষ্ট সবাইকে অনুরোধ করেছেন। তিনি বলেছেন, সাধারণ রোগী ও উচ্চবিত্ত রোগীদের মধ্যে কোনো বাছবিচার নয়।

হাসপাতালগুলোর ব্যবস্থাপনা এবং সমন্বয় বাড়াতে স্বাস্থ্য বিভাগের দৃষ্টি আকর্ষণ করে তিনি বলেন, বিভিন্ন গবেষণা ও গণমাধ্যমের রিপোর্ট অনুযায়ী করোনায় আক্রান্ত অনেক রোগী বাসাবাড়িতে চিকিৎসা নিচ্ছেন। তাঁদের সেবা ও প্রয়োজনীয় ডাক্তারি পরামর্শ পেতে টেলিমেডিসিন সেবা ও হটলাইনে সেবার মান বাড়ানোর অনুরোধ করেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, করোনা এমন সংক্রমণ যে কাছের মানুষও দূরে চলে যায়। মুহূর্তেই প্রিয়জন অচেনা হয়ে যায়। মা-বাবাকে সন্তান কিংবা স্বামীকে স্ত্রীকে হাসপাতালে রেখে চলে যাচ্ছে। আবার মৃত্যুর পর কেউ কাছে আসছে না। পুরোটা জীবন প্রিয়জনের জন্য নিবেদন করে শেষ বিদায় নিচ্ছেন প্রিয় মানুষের স্পর্শহীনতায়।

মৃত্যুর তিন ঘণ্টা পর মৃতদেহ থেকে সংক্রমণ ছড়ানোর সুযোগ নেই উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, এ রোগ অভিশাপ নয়, নিজেকে সুরক্ষিত রেখে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নিয়ম মেনে দাফন কাফন করতে পারে আপনজনেরা।

করোনার এই সংকটে দেশের কয়েকটি জেলায় বন্যা দেখা দেওয়ায় তাদের পাশে দাঁড়ানোর জন্যও আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীদের আহ্বান জানান দলের সাধারণ সম্পাদক।