৫০ বছরের মধ্যে ভয়াবহ বন্যার কবলে সিডনি

0
58

প্রবল বৃষ্টিপাতের কারণে ৫০ বছরের মধ্যে ভয়াবহ বন্যার মুখে অস্ট্রেলিয়ার পূর্ব উপকূল। বন্যার কারণে হাজার হাজার মানুষকে উপকূলীয় এলাকা থেকে সরিয়ে নিরাপদ আশ্রয় কেন্দ্রে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। রবিবার দেশটির কর্মকর্তারা এ তথ্য জানিয়েছেন।

নিউ সাউথ ওয়েলসের প্রিমিয়ার গ্রাডিয়াস বিরিজিকলিয়ান জানিয়েছেন, রাজ্যজুড়ে প্রবল বৃষ্টি হয়েছে। প্রাথমিকভাবে যে ক্ষয়ক্ষতির ধারণা করা হয়েছিল প্রকৃতপক্ষে তারচেয়েও বেশি ক্ষতি হয়েছে।  বিশেষ করে সিডনির উত্তর-পশ্চিমের নিম্নাঞ্চলে ক্ষয়ক্ষতির হার সবচেয়ে বেশি।

তিনি বলেন, ‘গতকাল আমরা ভেবেছিলাম এটা হয়তো ২০ বছরে একবারের ঘটনা হবে, এখন দেখা যাচ্ছে ৫০ বছরের মধ্যে প্রথম কোনো ঘটনা।’

শনিবার মধ্যরাতে সিডনির উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের বাসিন্দাদের এলাকা ছেড়ে চলে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। কর্তৃপক্ষ নির্দেশ দেয়, নিম্নভূমিতে বসবাস করছেন এমন যে কাউকে তাদের বাসস্থান ত্যাগ করতে হবে।

রবিবার আরও এক হাজার মানুষকে নিরাপদ আশ্রয়ে সরে যাওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়। এর আগে চার হাজার মানুষ অন্যত্র সরে গেছে বলে জানিয়েছিলেন বিরিজিকলিয়ান।

গত কয়েক বছরের মধ্যে প্রথমবারের মতো সিডনির পানির প্রধান উৎস ওয়ারাগাম্বা বাঁধ উপচে পানি চলে আসতে থাকে।

টেলিভিশন ও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়া ভিডিও ফুটেজগুলোতে দেখা গেছে, পানির তোড়ে বাড়িঘর ভেসে যাচ্ছে, সড়ক তলিয়ে গেছে, গাছপালা ভেঙ্গে পড়ছে এবং সড়কের অবকাঠামো ধ্বংস হচ্ছে। জরুরি সেবা বিভাগের হিসাব অনুযায়ী, শতাধিক বাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

আবহাওয়াবিদরা জানিয়েছেন, আরও কয়েক দিন প্রবল বৃষ্টি থাকবে। এ সপ্তাহের শেষ নাগাদ পর্যন্ত ভারী বর্ষণ ও তীব্র বাতাস অব্যাহত থাকবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। এ কারণে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত বন্যা কমার সম্ভাবনা নেই।

প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন এক ফেসবুক পোস্টে আক্রান্তদের কেন্দ্রীয় সরকারের আর্থিক সহযোগিতার ঘোষণা দিয়েছেন।