রিক্সার রাজ্যে চলছে অনিয়মের শাসন

361

শারমিন আজাদ:

সিটি কর্পোরেশনের রেজিস্ট্রেশন নিয়ে রিক্সার নগরী এই ঢাকায় রিক্সা চালানোর কথা থাকলেও এই নিয়ম মানছেন না কেউ। যে যার মতো নানা সংগঠনের প্লেট নিয়ে চালাচ্ছেন রিকসা। চালকরাও লাইসেন্সের তোয়াক্কা করছেন না।

সাধারণ মানুষের অভিযোগ, কর্তৃপক্ষের নজরদারির অভাবেই চলছে রিক্সার রাজ্যে অনিয়মের শাসন। তবে সিটি কর্পোরেশন বলছে, নজরে আসলেই ডাম্পিংয়ে চলে যায় অবৈধ রিক্সা।

১৮৬৫ সালে জাপানে উদ্ভাবিত রিক্সা বাংলাদেশে এক রোমাঞ্চকর জনপ্রিয় বাহন। এশিয়ার বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়া এই রিক্সা রেঙ্গুন থেকে চট্টগ্রামে এলেও ঢাকায় আসে ১৯১৯ সালে কলকাতা থেকে।

ইউরোপীয় পাট ব্যবসায়ীদের নিজেদের ব্যবহারের জন্য আনা এই রিক্সা ঢাকাবাসীর কাছে হয়ে ওঠে অন্যতম যানবাহন। তৎকালীন ঢাকা পৌরসভা এবং বর্তমান ঢাকা সিটি কর্পোরেশনের রেজিস্ট্রেশন নম্বর প্লেটসহ চলাচল করার কথা এই রিক্সার। অথচ নগরীতে ১২ লাখ রিক্সার মধ্যে, রেজিস্ট্রেশন আছে মাত্র ৮০ হাজারের।

অনুমোদনহীন নানা সংগঠনের নিয়ন্ত্রণে এখন রাজধানীর রিক্সা সা¤্রাজ্য। এদের দেয়া নম্বর প্লেট নিয়েই চলছে রিক্সা। রিক্সা সংগঠনগুলোর দাবি, নিবন্ধন করছে না সিটি কর্পোরেশন। আর সিটি কর্পোরেশনের সহজ জবাব, নজরদারি বাড়ানো যাচ্ছে না লোকবলের অভাবে। লাইসেন্সের কড়াকড়ি না থাকায় যে কেউ চালাচ্ছেন রিক্সা। ঘটছে দুর্ঘটনা। যাত্রীরা এর থেকে রেহাই চান।

রাতে রিক্সায় নিজস্ব আলোর ব্যবস্থা রাখার নিয়ম থাকলেও তা পরিণত হয়েছে অনিয়মে। নগরীতে রেজিস্ট্রেশন ছাড়া যানবাহন বা লাইসেন্সবিহীন চালকের শাস্তির বিধান থাকলেও তার প্রয়োগ নেই রিক্সার ক্ষেত্রে।

বিস্তারিত দেখতে এই লিংকে ক্লিক করুন: