বরফ গলে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বৃদ্ধি; ভয়াবহ পরিণতির আশঙ্কা গবেষকদের

0
49

মুবাল্লিগ করিম:

নতুন এক গবেষণায় একদল বিজ্ঞানী জানিয়েছেন, সমুদ্রপৃষ্ঠে পানির উচ্চতা বৃদ্ধির হার নিয়ে যে ভবিষ্যতবাণী করা হয়েছিলো তা আগের চেয়ে প্রায় দ্বিগুণ হবে।

গ্রীনল্যান্ড ও এন্টার্কটিকার বরফ গলে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বেড়ে ভয়াবহ পরিণতির আশঙ্কা করছেন তারা।

২১০০ সালের মধ্যে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা ১ মিটার বেড়ে যাবে বলে ভবিষ্যৎবাণী করেছিলেন একদল বিজ্ঞানী।

কিন্তুু নতুন গবেষণা থেকে জানা গেছে, সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা আগের ভবিষ্যৎবাণীর চেয়ে দ্বিগুণ হবে। এতে শত কোটি মানুষ বাস্তুহারা হয়ে পড়বেন। ন্যাশনাল একাডেমি অব সাইন্সে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এমনটা জানানো হয়েছে।

নতুন গবেষণায় বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, বর্তমানে প্রতিনিয়ত হাজার হাজার পেংগুইন মারা যাওয়া, এন্টার্কটিকায় অস্থিরতা, তাপমাত্রা বৃদ্ধি, গাছপালার সংখ্যা উল্লেখযোগ্য হারে কমে যাওয়ার হার পরিমাপ বিবেচনায় তারা নতুন এ তথ্য পেয়েছেন।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বর্তমানে যে হারে বরফ গলছে তা যদি অব্যাহত থাকে তাহলে পানি সমুদ্রের ধারণ ক্ষমতার বাইরে চলে যাবে। এতে স্থলভাগের বড় এক অংশ তলিয়ে যাবে।

গবেষকদের হিসাব অনুযায়ী লিবিয়ার আয়তনের মতো ১ দশমিক ৭৯ মিলিয়ন কিলোমিটার এলাকা পানির নিচে তলিয়ে যাবে। বাংলাদেশের বৃহৎ একটি অংশের মানুষ তাদের বাসস্থান হারাবে।

বৈশ্বিক দিকে থেকে কৃষি জমির বিরাট এক অংশ তলিয়ে যাবে। লন্ডন, নিউ ইয়র্ক এবং সাংহাইয়ের মতো বৃহৎ শহরও এই ঝুকির মধ্যে রয়েছে। এছাড়া ইউরোপে বাস্তুহারা লোকের চাপ বাড়বে বলেও সতর্কবার্তা দিয়েছেন বিজ্ঞানীরা।