Friday, June 18, 2021

MYTV Live

করোনা সংক্রমণরোধে নাটোর ও সিংড়া পৌর এলাকায় বুধবার থেকে বিশেষ লকডাউন ঘোষণা

করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় নাটোর ও সিংড়া পৌরসভা এলাকায় বুধবার থেকে সাতদিনের বিশেষ লকডাউন ঘোষণা করেছে জেলা প্রশাসন।

সোমবার রাতে করোনা প্রতিরোধ কমিটির সঙ্গে ভার্চুয়াল সভায় নেওয়া সিদ্ধান্তের কথা জানান জেলা প্রশাসক।

সোমবার রাত ১১টায় করোনা পরিস্থিতি নিয়ে জরুরি ভার্চুয়াল সভায় আলোচনা শেষে সবচেয়ে বেশি  করোনা আক্রান্ত এলাকা হিসেবে নাটোর পৌরসভার ৯টি  ওয়ার্ড এবং সিংড়া পৌরসভার ১২টি ওয়ার্ডে এই লকডাউন ঘোষণা করা হয়।

জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ভার্চুয়াল সভায় তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলকসহ চারজন সংসদ সদস্য, নাটোরের পুলিশ সুপার লিটন কামার সাহা, সিভিল সার্জন ডা. কাজী মিজানুর রহমান, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান, পৌর মেয়র, সাংবাদিক ও স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তা এবং ইউএনও ও পুলিশ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

বক্তারা বলেন, দিন দিন করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধি পাচ্ছে। গতকাল আক্রান্তের পরিমাণ ছিল ৬৭.৪ শতাংশ। অপরদিকে অ্যাস্টোজেন পরীক্ষার মাধ্যমে কোনো উপসর্গ ছাড়াই ২৮৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ২৭ জন আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হন। ফলে সামাজিক মেলামেশার মাধ্যমে এই ভাইরাস দ্রুত ছড়িয়ে পড়ছে। এ অবস্থায় সবচেয়ে বেশি করোনা আক্রান্ত এলাকা হিসেবে নাটোর ও সিংড়া পৌরসভায় সর্বাত্মক লকডাউনের ঘোষণার পরামর্শ দেন তাঁরা।

জেলা কমিটির ভার্চুয়াল সভায় প্রতিমন্ত্রী পলক বলেছেন, করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে মানুষের জীবন ও জীবিকার সমন্বয় করার কর্মপন্থা প্রদান করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে ভাইরাসের ভারতীয় ধরণ সংক্রমণের বিস্তারকে ঝুঁকিপূর্ণ করে তুলেছে। এখন দ্রুত সংক্রমণ ঘটছে। বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনা করে আমাদের কর্মপরিকল্পনা প্রণয়ন করতে হবে। 

প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, হাসপাতালে করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগীদের জন্য পর্যাপ্ত অক্সিজেন নিশ্চিত করতে হবে। যারা পজিটিভ হয়ে বাড়িতে আইসোলেশনে আছেন, তাদের জন্যে চিকিৎসা পরামর্শ প্রদান, প্রয়োজনে বাড়িতে ওষুধ ও খাবার পৌঁছে দিতে হবে। কর্মহীন অসহায় মানুষের জন্যে সরকার প্রয়োজনীয় ত্রাণ বরাদ্দ দিয়েছে। এসব মানুষের কাছে খাদ্য সহায়তা পৌঁছে দেবে প্রশাসন ও জনপ্রতিনিধিরা। খাদ্য সংকটে থাকা যে কোন ব্যক্তি কল সেন্টার ৩৩৩ এ ফোন করলে বাড়িতে খাদ্য পৌঁছে দেওয়া হবে। জীবিকার জন্যে জীবনকে সংকটে ফেলা যাবে না। জীবিকা হারানো অসহায় সব মানুষের পাশে সরকার সবসময় থাকবে বলে তিনি উল্লেখ করেন। 

সভা শেষে জেলা প্রশাসক মো. শাহরিয়াজ মন্ত্রিসভার সিদ্ধান্তের আলোকে সর্বাত্মক লকডাউন ঘোষণা করেন।

লকডাউন চলাকালে কাঁচাবাজার, নিত্যব্যবহার্য ও কৃষিপণ্য ছাড়া সব ব্যবসাপ্রতিষ্ঠান ও যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে। মঙ্গলবার সকাল থেকে লকডাউনের বিষয়ে নাটোর শহর ও সিংড়া এলাকায় মাইকে প্রচার করা হচ্ছে। এতে জরুরি প্রয়োজন ছাড়া সবাইকে ঘরে থাকার জন্য অনুরোধ জানানো হচ্ছে। এ আদেশ অমান্যকারীদের বিরুদ্ধে আইনি ব্যবস্থা নেওয়ার কড়া হুঁশিয়ারি দেওয়া হচ্ছে।

Related Articles

Stay Connected

21,980FansLike
2,814FollowersFollow
0SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles