MYTV Live

ভোলায় বিএনপি-পুলিশের সংঘর্ষ; নিহত ১, আহত অর্ধশতাধিক

ভোলা সদরের মহাজন পট্টিতে বিএনপির সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ হয়েছে। এ ঘটনায় মো. রহিম (৩০) নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন বলে ভোলা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনায়েত হোসেন নিশ্চিত করেছেন। আটক করা হয়েছে ১২ জনকে।

এদিকে সংঘর্ষ চলাকালে পুলিশসহ আহত হয়েছেন ৫০ জনের বেশি মানুষ। এদের মধ্যে গুলিবিদ্ধ ২০ জন। তাদের ভোলা ও বরিশাল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।  

নিহত রহিম সদর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সদস্য ছিলেন বলে জানা গেছে।

এদিকে, সংঘর্ষের পর থেকে শহরজুড়ে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। জেলা বিএনপি কার্যালয়ে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির শোপন জানান, বিএনপির কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে সমাবেশ শেষে বিক্ষোভ করতে গেলে পুলিশ বাধা দেয়। একপর্যায়ে পুলিশ টিআর শেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে। এতে অর্ধশতাধিক নেতাকর্মী আহত হন। এছাড়া পুলিশের গুলিতে আব্দুর রহিম নামে একজন নিহত হন। আহতদের ভোলা সদর ও বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

ভোলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোহাম্মদ ফরহাদ সরদার জানান, সকালের দিকে জেলা বিএনপির কার্যালয়ের সামনে সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। পরে তারা সড়ক বন্ধ করে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করলে পুলিশ তাদেরকে সড়ক বন্ধ করতে নিষেধ করে। এর পরও তারা সড়ক বন্ধ করে রাষ্ট্রবিরোধী বিভিন্ন স্লোগান দিতে থাকে এবং তাদের মিছিলের মধ্য থেকে পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে। পুলিশ আত্মরক্ষার্থে প্রথমে লাঠিচার্জ করে। এতেও তারা ক্ষান্ত না হওয়ায় পুলিশ টিয়ার শেল নিক্ষেপ করে। এ ঘটনায় পুলিশের অন্তত ১০ সদস্য আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে ১১ জনকে আটক করা হয়েছে।  

Related Articles

Stay Connected

22,878FansLike
3,433FollowersFollow
20,000SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles